মেনু নির্বাচন করুন

সাম্প্রতিক কর্মকান্ড

গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়ন কর্মসূচির জন্য এলজিইডি’র প্রধান কার্যক্রম হচ্ছে গ্রোথ সেন্টার (জিসি), গুরুত্বপূর্ণ সামাজিক ও প্রশাসনিক স্থানসমূহে যাতায়াত ব্যবস্থা উন্নতিকরন এবং গ্রামীণ এলাকার কৃষি ও অকৃষি পণ্যের বিপণন সুবিধা প্রসারিত করতে গ্রামীণ সড়ক পরিবহন নেটওয়ার্কের বিকাশ। গ্রোথ সেন্টার হল অর্থনৈতিকভাবে গুরুত্বপূর্ণ বাজার যা একটি নির্দিষ্ট গ্রামাঞ্চলের অর্থনৈতিক নিউক্লিয়াস হিসেবে ভূমিকা পালন করে। দেশজুড়ে ২১০০ গ্রোথ সেন্টার এবং ১৮০০০ ছোট বাজার রয়েছে।

এলজিইডি যে সকল গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়ন কার্যক্রম বাস্তবায়ন করে তা নিন্মরুপঃ

  • উপজেলা এবং ইউনিয়ন সড়ক ও এর উপর সেতু/কালভার্ট নির্মাণ।

  • গ্রোথ সেন্টার (জিসি) উন্নয়ন।

  • ইউনিয়ন পরিষদ (কাউন্সিল) কমপ্লেক্স এবং প্রাথমিক বিদ্যালয় নির্মাণ।

  • জেটি এবং নৌকার ঘাট নির্মাণ।

  • ঘূর্ণিঝড় আশ্রয়কেন্দ্র এবং কিল্লা (বন্যার সময় প্রাণীদের আশ্রয়ের জন্য উঁচু মাটির স্থান) নির্মাণ।

  • গ্রামীণ অবকাঠামো নির্মাণের জন্য প্রযুক্তিগত বিবরণ এবং ম্যানুয়াল প্রণয়ন।

  • গ্রামীণ সড়কের মাস্টারপ্ল্যান, অবকাঠামো ডাটাবেস ও ডিজিটাল ম্যাপের উন্নয়ন ও হালনাগাদ করা।

  • স্থানীয় পর্যায়ে পরিকল্পনা ও অংশগ্রহণ সহজতর করতে উপজেলা ও ইউনিয়ন পরিকল্পনা বই প্রস্তুতকরণ।

  • জেলা ও উপজেলা পরিষদে প্রযুক্তিগত সহায়তা প্রদান।

  • সড়ক ও বাঁধের ঢালে বৃক্ষ রোপন।নগর অবকাঠামো উন্নয়নঃ

    নগর অবকাঠামো উন্নয়ন কর্মসূচী বাস্তবায়নে এলজিইডি নগরের স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানকে (সিটি কর্পোরেশন, সিটি কাউন্সিল) প্রযুক্তিগত ও ব্যবস্থাপনা সহায়তা প্রদান করে। সামগ্রিক কার্যক্রম সমূহ নিম্নরূপ:

  • সমন্বিত নগর কেন্দ্রের (বাস টার্মিনাল, বাজার ইত্যাদি) পরিকল্পনা প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন।

  • পৌরসড়ক, সেতু/কালভার্ট, পয়ঃনিষ্কাশন, পানি সরবরাহ ও স্যানিটেশন প্রকল্পের পরিকল্পনা গ্রহন ও বাস্তবায়ন।

  • কঠিন বর্জ্য ব্যবস্থাপনা প্রকল্পের পরিকল্পনা ও বাস্তবায়ন।

  • বস্তিবাসীদের উন্নয়ন প্রকল্পের পরিকল্পনা ও বাস্তবায়ন।

  • ভূমি ব্যবহার পরিকল্পনা, জরিপ ও ডিজিটাল ম্যাপ প্রণয়ন।

  • পরিকল্পনা ও পরিচালনক্ষমতা এবং সম্পদ সংহতি ও ব্যবস্থাপনা উন্নত করতে পৌরসভাতে ব্যবহারের জন্য ডাটাবেস ও সফটওয়্যার প্রণয়ন।

  • প্রশিক্ষণ ও প্রযুক্তির মাধ্যমে পৌরসভার প্রাতিষ্ঠানিক উন্নয়ন।

  • জেলা ও উপজেলা শহরে মাস্টার প্ল্যান প্রণয়ন।

  • শহর অবকাঠামো নির্মাণের কারিগরি বিবরণ এবং ম্যানুয়াল প্রস্তুতকরণ।

  • ক্ষুদ্রাকার পানি সম্পদ উন্নয়নঃ

    fun9 এলজিইডি ১০০০ হেক্টর কমান্ড এরিয়া পর্যন্ত ক্ষুদ্রাকার পানি সম্পদ উন্নয়ন কর্মসূচির বাস্তবায়ন করে।

    এলজিইডি প্রকল্পের প্রস্তুতি ও বাস্তবায়ন পর্যায়ে এবং রক্ষণাবেক্ষণের সময় অংশীদারদের অন্তর্ভুক্ত করে ডাব্লিউএমসিএ (পানি ব্যবস্থাপনা সমবায় সমিতি, যা অংশীদারদের দ্বারা নির্বাচিত সমিতি) এর মাধ্যমে অংশীদারদের দ্বারা গৃহিত কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে। সামগ্রিক কার্যক্রম নিম্নরূপঃ

  • বন্যা প্রতিরোধ বাঁধ নির্মাণ।

  • সেচের জন্য পানি সংরক্ষণ ও সেচ পদ্ধতির উন্নয়ন।

  • পানি সংরক্ষণ কাঠামো নির্মাণ এবং রাবার ড্যাম নির্মাণ।

  • খাল খনন ও পুনঃখনন।

  • অংশীদার ও WMCA সদস্যদের প্রশিক্ষণ।

  • গ্রামীণ অবকাঠামো রক্ষণাবেক্ষণ কর্মসূচীঃ

    fun12 এলজিইডি এবং স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান এর আওতায় মোট ২.৬৫ লক্ষ কিলোমিটার সড়ক এবং ১২ লক্ষ মিটার সেতু/কালভার্ট রয়েছে। সড়ক ও সেতু/কালভার্টের বর্তমান অবস্থা এবং বিস্তারিত পরিসংখ্যান সড়ক রক্ষণাবেক্ষণ ও সড়ক নিরাপত্তা ইউনিট (RMRSU)-এ দেয়া রয়েছে।

    যখনই একটি সড়ক উন্নয়ন বা সেতু/কালভার্ট নির্মিত হয়, তা জনগণের সম্পদে পরিণত হয়। তাই এইরূপ সম্পদের রক্ষণাবেক্ষণ অত্যাবশ্যক, যার অভাব পরিবহন ব্যবস্থার কার্যকারিতা হ্রাস পেয়ে সড়ক নিরাপত্তা, গাড়ী পরিচালনা ব্যয় এবং অনুরূপ অনেক বিষয়কে প্রভাবিত করে।

     


    রক্ষণাবেক্ষণ মূলত দুই ধরনের:

  • নিয়মিত রক্ষণাবেক্ষণ
    • সময়ান্তর রক্ষণাবেক্ষণ
    fun13 
    এছাড়া বিশেষ পরিস্থিতিতে যেমনঃ দুর্যোগ বা প্রাকৃতিক বিপর্যয়ে জরুরী রক্ষণাবেক্ষণ করা হয়।

     


    এলজিইডি এর রক্ষণাবেক্ষণ কার্যক্রম যা সড়ক রক্ষণাবেক্ষণ ও সড়ক নিরাপত্তা ইউনিট (RMRSU) সম্পাদন করে তা নিম্নরূপঃ

  • সড়ক ও অবকাঠামো ডাটাবেজ সংরক্ষণ ও হালনাগাদকরণ।

  • বার্ষিক রক্ষণাবেক্ষণ পরিকল্পনা ও বাজেট প্রণয়ন।

  • রক্ষণাবেক্ষণ গাইড লাইন/ম্যানুয়াল প্রণয়ন।

  • যানবাহন ও সড়কের অবস্থার জরীপ পরিচালনা।